বগুড়ার শিবগঞ্জে স্কুল শিক্ষিকাকে ইভটিজিং, বখাটের ৬ মাসের কারাদন্ড

224
গোলাম রব্বানী শিপন, মহাস্থান (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ দেশব্যাপী ধর্ষণ, নারী নির্যাতন ও উত্ত্যক্তের ঘটনায় যখন উত্তপ্ত। সেই মুহুর্তে বগুড়ার শিবগঞ্জে এক স্কুল শিক্ষিকাকে ইভটিজিং করার দায়ে তারিকুল ইসলাম অরফে (খোকন) (৩৭) নামে এক বখাটে কে ৬ মাসের কারাদন্ড দিয়েছেন শিবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও বিজ্ঞ (এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট) আলমগীর কবীর। দন্ডপ্রাপ্ত তারিকুল ইসলাম শিবগঞ্জ উপজেলার বিহার ইউনিয়নের শচিয়ানী পশ্চিমপাড়া গ্রামের মৃত মুজিবুর রহমানের পুত্র।
ভ্রাম্যমাণ আদালত সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার বেলা পৌনে ১২টায়, উপজেলার বিহার শচিয়ানী গ্রামে ব্রীজে দাঁড়িয়ে এলাকার তারিকুল ইসলাম নামের বখাটে মহাস্থানে এক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষিকাকে প্রায়ই বেপরোয়া ভাবে ইভটিজিং (উত্ত্যক্ত) করতেন।  পরে ওই শিক্ষিকার অভিযোগের প্রেক্ষিতে সরেজমিন গিয়ে বখাটে তারিকুলকে  (ইউএনও) এর নির্দেশে আটক করে শিবগঞ্জ থানা পুলিশ। পরে স্বাক্ষী প্রমানের ভিত্তিতে এবং আসামীর স্বীকারোক্তিতে তাকে দোষী সাব্যস্থ করে দণ্ডবিধি ১৮৬০ এর ৫০৯ ধারা মোতাবেক ৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করা হয়।
এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার, এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট আলমগীর কবীর এর সাথে কথা বললে তিনি জানান, সাম্প্রতিক ক্রবর্ধমান নারী নির্যাতন প্রতিরোধে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। নিজ নিজ এলাকায় নির্যাতিত ও উত্ত্যক্তের শিকার নারীরা উপজেলা প্রশাসনের হস্তক্ষেপ সহায়তা পাবেন। নারী উত্ত্যক্ত ও নির্যাতিত ব্যক্তিদের কোন ছাড় নেই। তিনি আরও জানান, জনস্বার্থে উপজেলা প্রশাসন এ অভিযান অব্যাহত রাখবে।
খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক প্রত্যাশা প্রতিদিন এর দায়ভার নেবে না।