নওগাঁয় স্বাধীনতা ভাষ্কর্যের উপর হামলা; আটক-১

184
নওগাঁয় স্বাধীনতা ভাষ্কর্যের উপর হামলা; আটক-১
নওগাঁয় স্বাধীনতা ভাষ্কর্যের উপর হামলা; আটক-১

ফারমান আলী, নওগাঁ জেলা প্রতিনিধি ঃ নওগাঁ শহরের প্রাণকেন্দ্র ব্রীজের মোড়ে অবস্থিত স্বাধীনতা ভাষ্কর্যের এক হাত ভেঙ্গে ফেলেছে সুমন নামে এক ব্যক্তি। তাকে আটক করেছে নওগাঁ সদর মডেল থানা পুলিশ। আটককৃত সুমন রানীনগর উপজেলার চকাতি গ্রামের মৃত ইব্রাহিমের ছেলে বলে জানা গেছে। কিন্তু তিনি অনেক দিন যাব নওগাঁ সদর উপজেলার খাস নওগাঁ মফিজপাড়া এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকেন। গত শনিবার বিকালে সাড়ে ৪টায় নওগাঁ শহরের প্রাণকেন্দ্র ব্রীজের মোড়ে অবস্থিত স্বাধীনতা ভাষ্কর্যের হাতুড়ি দিয়ে ভাষ্কর্যের এক হাত ভেঙ্গে ফেলেন।

এসময় স্থানীয়রা দেখতে পেয়ে সুমন নামে এক ব্যক্তিকে আটক করে নওগাঁ সদর মডেল থানায় খরব দিলে পুলিশ ঘটনা স্থল থেকে সুমন আটক করে থানায় নিয়ে যায়। উল্লেখ্য যে, ২৬ আগষ্ট ১৯৯৬ সালে নওগাঁ শহরের প্রাণকেন্দ্র ব্রীজের মোড়ে স্বাধীনতা ভাষ্কর্যের উদ্বোধন করে ছিলেন প্রয়াত নেতা বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মরহুম আব্দুল জলিল। কিন্তু এ স্বাধীনতা ভাষ্কর্য ভেঙ্গে ফেলে মুক্তিযোদ্ধের ও স্বাধীনতার চেতনা মুছে ফেলার জন্যই কে বা কারা এই কাজ করছে কাদের হাত রয়েছে তা সুষ্ঠু তদন্ত করে তাদের বিরুদ্ধে আইনীক ব্যবস্থা গ্রহন করতে প্রশাসনের কাছে দাবি জানিয়েছে স্থানীয় বিভিন্ন সংগঠন ও সুশিল সমাজ।

বীর মুক্তিযোদ্ধার সভাপতি আফজাল হোসেন বলেন, যে ঘটনাটি ঘটেছে আসলেই এটা খুবই দূ:খজনক ঘটনা। আমরা যেটা নিয়ে গর্ব করি বা স্বাধীনতা নিয়ে গর্ব করি সেই স্মৃতি ফলকটা কে একটা সন্ত্রাসী না কে হঠাৎ বিকালে এসে আমাদের একাত্তরের স্মৃতিটাকে আঘাত করেছে এবং একটি হাত ভেঙ্গে ফেলেছে।কার পরোচনায় এই কাজটি করলো তাকে চিন্নিত করে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করতে প্রশাসনের কাছে দাবি জানাচ্ছি।

এ বিষয়ে নওগাঁ সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ সোহরাওয়ার্দী হোসেন জানান, স্বাধীনতা ভাষ্কর্যের এক হাত ভেঙ্গে ফেলেছে এমন খবর পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে পুলিশ পাঠায়ে ঘটনা স্থল থেকে সুমন নামের এক ব্যক্তি আটক করা হয়। এবং ভাষ্কর্য ভেঙ্গে ফেলার পিছনে কাদের হাত রয়েছে তা সুষ্ঠু তদন্ত করা হচ্ছে। এ বিষয়ে সুমনের বিরুদ্ধে থানায় একটি মামলা রুজু হয়েছে।

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, দৈনিক প্রত্যাশা প্রতিদিন এর দায়ভার নেবে না।